রবিবার  ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ইং  |  ১১ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ  |  ২৮শে জমাদিউস-সানি, ১৪৪১ হিজরী

লাদেনের সহযোগী থেকে ব্রিটিশ গোয়েন্দা, আল কায়দার গোপনীয়তা ফাঁস

প্রয়াত আল কায়দা নেতা ওসামা বিন লাদেনের এক সময়কার বিশ্বস্ত সহযোগী ছিলেন বোমা বিশেষজ্ঞ আইমেন দিন। তবে নিজের ভুল বুঝতে পেরে চার বছর আল কায়দার সঙ্গে থাকার পর সংগঠনটি ছেড়ে দিয়েছিলেন তিনি। সেই আইমেন দিনই এখন ব্রিটিশ গোয়েন্দা সংস্থা সিক্রেট ইন্টিলিজেন্সের সদস্য। ব্রিটিশ সংবাদ মাধ্যম দ্য ডেইলি স্টারকে দেয়া সাক্ষাতকারে আইমেন দিন জানিয়েছেন কিভাবে কার্যক্রম পরিচালনা করে জঙ্গি সংগঠন আল কায়দা।

আল কায়দার সাবেক বোমা বিশেষজ্ঞ আইমেন দিন জানায়, ১৯৯৭ সালে তিনি আল কায়দার সঙ্গে যুক্ত হন। আর তখনই তিনি প্রথম বোমা বানানোর কাজ শুরু করেন। এই বিষয়ে আইমেন দিন বলেন, আমার এখনো এই সতর্কবার্তা মনে আছে। তারা আমাকে বলেছিল মনে রাখবেন, আপনি যখন বোমা বানাচ্ছেন, আপনার প্রথম ভুলই শেষ ভুল। আপনি এখানে তেজস্ক্রিয় রাসায়নিক দ্রব্য নিয়ে কাজ করছেন, আলু কিংবা পেঁয়াজ নিয়ে নয়।

সেই সময়ের স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে আইমেন দিন আরো বলেন, আমরা আফগানিস্তানের একটি উপত্যকায় দুইকক্ষ বিশিষ্ট একটি ঘরে কাজ করতাম। ঘরটি খড় এবং মাটির তৈরি ছিল । যদি যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের লোকজন ওই ঘর দেখতেন আমার মনে হয় তারা সেখানে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে মারা যেতেন।

বোমা বানানোর বিষয়ে আইমেন দিন বলেন, শুধুমাত্র বর্ণনা পড়ে কিছু রাসায়নিক দ্রব্য দিয়ে আপনি উচ্চ শব্দের বোমা বানাতে পারবেন না।এই জন্য আপনার দরকার হবে একজন দক্ষ প্রশিক্ষক। আমি এমন চারটি ঘটনা দেখেছি যেখানে বোমা বানানোর সময় মারাত্বক দুর্ঘটনা ঘটেছে।

আল কায়দার সঙ্গে চার বছর কাটানোর পর ব্রিটিশ গোয়েন্দাদের হয়ে গত আট বছর ধরে কাজ করছেন আইমেন দিন। এই বিষয়ে তিনি বলেন, আল কায়দা কিছু জিহাদের ভুল ব্যাখ্যা দিয়ে রাজত্ব তৈরি করতে চায়। আর তাদের এটি বন্ধ করা উচিৎ।

প্রসঙ্গত, ২০১১ সালে আল কায়দার প্রতিষ্ঠাতা ওসামা বিন লাদেনের মৃত্যু হয়। যুক্তরাষ্ট্রের একটি বিশেষ বাহিনীর অভিযানে পাকিস্তানের আবোটাবাদ শহরে তিনি নিহত হন।

একটি প্রতি উত্তর ট্যাগ

আপনার ইমেল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না. প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রগুলি চিহ্নিত *

*

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com