বুধবার  ২৬শে জানুয়ারি, ২০২২ ইং  |  ১৩ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ  |  ২২শে জমাদিউস-সানি, ১৪৪৩ হিজরী

নিয়মিত শরীরী-সম্পর্কে নারী মস্তিষ্ক সুগঠিত হয়

যৌনতা মানবজীবনের একটি অপরিহার্য অংশ। এবং এটা অবশ্যই আনন্দদায়ক। সুন্দর ও সুস্থ যৌনতা সঙ্গীর প্রতি সঙ্গীকে আরো অনেক বেশি আবেগগতভাবে সংযুক্ত করে।

শুধু মানসিক নয়, সুস্থ যৌনতা আপনাকে শারীরিকভাবেও লাভবান করতে পারে- বিশেষ করে নারীদের।

গবেষকরা খুঁজে পেয়েছেন- মস্তিষ্কের একটি অংশ নারীদের যৌনাঙ্গের স্পর্শের সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত। আর এটা ধারণা করা হচ্ছে, যাঁরা এ স্পর্শ নিয়মিত পান, তাঁদের মস্তিষ্কের ওই অংশটি আরো উন্নত। জার্নাল অব নিউরোসায়েন্সে প্রকাশিত গবেষণাপত্রটি থেকে জানা যায়, ২০ জন প্রাপ্তবয়স্ক নারীর ওপর গবেষণা করে স্পর্শের সঙ্গে মস্তিষ্কের বিকাশের মধ্যে সংযোগ খুঁজে পাওয়া গেছে।

গবেষণার একটি অংশে নারী স্বেচ্ছাসেবীদের (যাঁদের ওপর গবেষণাটি পরিচালিত, বয়স ১৮ এবং ৪৫) অন্তর্বাসের ভেতর একটি স্পন্দনশীল বস্তু (ভাইব্রেটিং অবজেক্ট) ক্লিটোরিসের ওপর স্থাপন করা হয়, যা যৌনাঙ্গটিকে উদ্দীপ্ত করে। ঠিক ওই সময় তাঁদের মস্তিষ্ককে স্ক্যান করা হয়। ডিভাইসটি কাঁপতে শুরু করার সঙ্গে সঙ্গে মস্তিষ্কের সোমাটোসেন্সরি কর্টেক্স অঞ্চল সক্রিয় হয়ে ওঠে। গবেষকরা এরপর মস্তিষ্কের ওই অংশের ঘনত্ব পরিমাপ করেন। তাঁরা দেখতে পান- অধিক শরীরী-সম্পর্ক স্থাপনকারীদের ওই অংশের ঘনত্ব অন্যদের তুলনায় বেশি।

এ সময় গবেষকরা ওই নারীদের কাছ থেকে এ-ও জানতে চান, বিগত বছরগুলোতে তাঁরা কতটা ঘন ঘন সুস্থ যৌন সম্পর্কে লিপ্ত হয়েছেন।

গবেষণাপত্রটির সহরচয়িতা বার্লিনের চ্যারিট ইউনিভার্সিটি হাসপাতালের মেডিক্যাল সাইকোলজি বিভাগের অধ্যাপক ড. ক্রিস্টিন হেইম ব্যাখ্যা করেন, ‘আমরা যৌনাঙ্গের মিলনের কম্পাঙ্ক এবং পৃথকভাবে ম্যাপ করা যৌনাঙ্গের ক্ষেত্রের ঘনত্বের মধ্যে একটি সম্পর্ক খুঁজে পেয়েছি।’

সুতরাং এটা বেশ স্পষ্ট যে, যত বেশি যৌনতা, মস্তিষ্কের ততটা উন্নতি।

অবশ্য গবেষকরা নিশ্চিত করতে পারেননি যে আরো উন্নত সোমাটোসেন্সরি কর্টেক্স বেশি যৌন মিলনের প্ররোচনা দেয় কি-না  বা আরো বেশি মিলন মস্তিষ্কের ওই অঞ্চলকে প্রসারিত করে কি-না।

এটা কিন্তু মস্তিষ্কের সঙ্গে যৌনতার সম্পর্ক নির্ণয়কারী প্রথম গবেষণা নয়। ২০১৬ সালে কানাডার ম্যাকগিল বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক তাঁদের গবেষণা থেকে জানান, নিয়মিত যৌন সম্পর্ক করেন এমন কম বয়সী নারীরা যেকোনো নিয়মিত বিষয় মনে রাখার ক্ষেত্রে যৌনতায় কম সক্রিয়দের চেয়ে এগিয়ে আছেন। ওই বছরই আরেকটি গবেষণায় দেখা যায়, নিয়মিত শরীরী-সম্পর্ক করেন এমন বয়স্করা সুস্থ মস্তিষ্কের অধিকারী এবং তাঁদের স্মৃতিশক্তিও বেশ প্রখর।

এটা পুরুষদের জন্যও একটি আনন্দের খবর, নয় কি?

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com