বৃহস্পতিবার  ২রা ডিসেম্বর, ২০২১ ইং  |  ১৭ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ  |  ২৬শে রবিউস-সানি, ১৪৪৩ হিজরী

‘ঘৃণিত’ মার্শকে এবার লোকে চিনবে

ক্যারিয়ারজুড়েই চোটাঘাতের সঙ্গে যুদ্ধ করে চলছেন মিচেল মার্শ। বারবার মাঠের বাইরে চলে যেতে হয়েছে। আবারও লড়াই করে ফিরেছেন। মাঠে পারফর্ম করতে পারেননি। চারদিক থেকে ভেসে এসেছে সমালোচনা। দুই বছর আগে তো স্বীকার করতে বাধ্য হয়েছিলেন, অস্ট্রেলিয়ার বেশির ভাগ মানুষই তাকে ঘৃণা করে! সেই মিচেল মার্শই অস্ট্রেলিয়াকে প্রথম টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ এনে দিলেন। গতকাল নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তার ৫০ বলে অপরাজিত ৭৭* রানে প্রথমবার টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ জয়ের স্বাদ পায় অস্ট্রেলিয়া।

১৭৩ রান তাড়া করতে নেমে দলীয় ১৫ রানে আউট হন অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। বেকায়দায় পড়ে যাওয়া দলকে টেনে তোলেন মার্শ এবং ওয়ার্নার। নিজের প্রথম বলেই নিউজিল্যান্ডের ফাস্ট বোলার অ্যাডাম মিলনেকে স্কয়ার লেগ দিয়ে হাঁকান বিশাল এক ছক্কা। দ্বিতীয় বল স্লিপ দিয়ে পাঠিয়ে দেন সীমানার বাইরে। তৃতীয় বলে স্কয়ার লেগ দিয়ে পুল করে মারেন আরেকটি বাউন্ডারি। এই তিনটি বলই অস্ট্রেলিয়াকে ম্যাচে ফেরায়। আর ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি নিউজিল্যান্ড।

ম্যাচ শেষে মার্শের উচ্ছসিত প্রশংসা করেন অস্ট্রেলিয়ার সাবেক অল-রাউন্ডার শেন ওয়াটসন। তিনি বলেন, ‘এটা আমার দেখা অন্যতম সেরা টি-টোয়েন্টি ইনিংস। সে ছয় মাস ধরেই অস্ট্রেলিয়ার হয়ে দারুণ পারফর্ম করছে, কিন্তু এই ইনিংসটায় সে নতুন করে তার জাত চিনিয়েছে। সমর্থকদের একাংশ ছিল মার্শের পক্ষে, আরেক দল ছিল বিপক্ষে। এর প্রধান কারণটা হলো তার চোট। যার জন্য সে একাদশে কখনোই থিতু হতে পারেনি। আসলে মার্শের দক্ষতা সম্পর্কে লোকজনের কোনো ধারণাই নেই। এখন হয়তো তারা সেটা বুঝবে।

WP2Social Auto Publish Powered By : XYZScripts.com